সউদীতে বাংলাদেশিসহ ৭৭ হাজার কর্মী ছাঁটাই, বিক্ষোভ, বাসে আগুন

Saudi Bus Ablaze

চার মাসের বেতন পরিশোধ না করেই ৭৭ হাজার বিদেশি শ্রমিক ছাঁটাই করেছে সউদী আরবের সবচেয়ে বড় ভবন নির্মাতাপ্রতিষ্ঠান বিন লাদেন কনস্ট্রাকশনস গ্রুপ। প্রতিষ্ঠানটির বরাত দিয়ে দেশটির প্রভাবশালী পত্রিকা খালিজ টাইমস জানিয়েছে, এই শ্রমিকদের এরই মধ্যে ভিসা বাতিলের (এক্সিট ভিসা) কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।
এর আগে গত শনিবার ‘বিন লাদেন গ্রুপ’ ৫০ হাজার বিদেশি শ্রমিক ছাঁটাইয়ের ঘোষণা দেওয়ার পর মক্কায় বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। এরই মধ্যে নতুন করে আরো ২৭ হাজার শ্রমিক ছাঁটাইয়ের ঘোষণা দেওয়া হলো।
এই বিপুলসংখ্যক শ্রমিকদের মধ্যে কোন দেশের কতসংখ্যক শ্রমিক আছে তা আনুষ্ঠানিকভাবে জানায়নি দেশটির শ্রম মন্ত্রণালয়। তবে মন্ত্রণালয়ের সূত্রে জানা গেছে চাকরিচ্যুত শ্রমিকদের মধ্যে আছেন বিপুলসংখ্যক বাংলাদেশিও।
গত কয়েকদিন ধরে কয়েক হাজার কর্মীকে চাকরিচ্যুত করার অভিযোগের বিষয়ে সর্বশেষ এই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বেতন পরিশোধ না করে শ্রমিক ছাঁটাই করায় উপসাগরীয় দেশটিতে বিশৃঙ্খলা তৈরি হয়েছে। এর আগে গত মার্চে সউদী সরকার এই নির্মাণপ্রতিষ্ঠানের ওপর বেশ কিছু নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে।
গত সেপ্টেম্বরে মক্কায় ভয়াবহ ক্রেন ধসের পর বিন লাদেন গ্রুপের ওপর সরকারি নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। আজ সোমবার এই প্রতিষ্ঠানের একজন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে দেশটির জাতীয় দৈনিক আল-ওয়াতানের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গ্রুপের ৭৭ হাজার বিদেশি শ্রমিক দেশত্যাগের জন্য এক্সিট ভিসা পেয়েছেন।
বিন লাদেন গ্রুপের ওই কর্মকর্তা আরো জানান, দুই বছর ধরে সউদী আরবের তেল রাজস্বে ব্যাপক ধস শুরু হয়েছে। এ ছাড়া সরকারি নিষেধাজ্ঞার কারণে নির্মাণ জায়ান্ট বিন লাদেন গ্রুপের কর্মীরা বেতন পাননি। দীর্ঘদিন ধরে তাঁরা বেতনের জন্য অপেক্ষা করছিলেন।
ওই কর্মকর্তা বলেন, বিশ্বের বৃহৎ নির্মাণকারী কোম্পানিগুলোর মধ্যে অন্যতম এই প্রতিষ্ঠানে অন্তত দুই লাখ বিদেশি কর্মী রয়েছেন। বিদেশি শ্রমিকদের মধ্যে অনেককেই আর কাজে রাখা সম্ভব হবে না বলে মনে করছে কর্তৃপক্ষ। এ ছাড়া কোম্পানির ইঞ্জিনিয়ার, প্রশাসক ও পরিদর্শক পদে কর্মরত ১৭ হাজার সউদী কর্মকর্তার মধ্যে ১২ হাজার কর্মকর্তা চাকরিচ্যুত হতে পারেন বলে তিনি জানান।
এদিকে বিন লাদেন গ্রুপের এই সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে এরই মধ্যে বিক্ষোভে নেমেছেন শ্রমিকরা। বেতন পরিশোধ না হওয়া পর্যন্ত সউদী আরব না ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তাঁরা।
আজ সোমবারও বেতন পরিশোধের দাবিতে মক্কায় কোম্পানির প্রশাসনিক কার্যালয়ের সামনে প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করছেন শ্রমিকরা। বিক্ষোভকারীরা অন্তত সাতটি বাসে আগুন দিয়েছেন বলেও খবর পাওয়া গেছে। বিক্ষোভ ও বাসে আগুন দেওয়ার ভিডিও ক্লিপ সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে।

এ সম্পর্কিত আরো লেখা