বোরহানউদ্দিনে শিক্ষার্থীদের বিদুৎ বক্তৃতা

bor-pic-20-09

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলার বোরহানউদ্দিনে জাতীয় বিদ্যুৎ সপ্তাহ উপলক্ষে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহনে জমজমাট বক্তৃতা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। মঙ্গলবার ওজোপাডিকো লিমিটেডের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে ওই প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপজেলার মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যকি স্তরের ৬৬ টি স্কুল, কলেজ, মাদরাসার ১২৬ জন শিক্ষার্থী অংশ নেয়।
বিতর্ক অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন, ভোলার জীবন-পুরাণ আবৃতি সংসদের সভাপতি মশিউর রহমান পিঙ্কু।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আ. কুদ্দূসের সভাপতিত্বে পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন, আবাসিক প্রকৌশলী আবুল কালাম আজাদ, কৃষি কর্মকর্তা মো. ওমর ফারুক, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান প্রমুখ।
প্রতিযোগিতায় প্রথম, দ্বিতীয়, তৃতীয়সহ ১৫ জন সেরা বক্তার হাতে পুরস্কার তুলে দেয়া হয়।

অর্ধশত অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ
ভোলার বোরহানউদ্দিনে ভূমি অফিসের সরকারী জমিতে দখল করা প্রায় অর্ধশত অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যার আগে জেলা প্রশাসনের রেভিনিউ ডেপুটি কালেক্টর সরদার মোস্তফা শাহিন থানা পুলিশের সহায়তা নিয়ে এ অভিযান পরিচালনা করেন। উচ্ছেদের পরপরই উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আ. কুদদূস ওই স্থানে বিভিন্ন প্রজাতির ফলজ ও বনজ গাছের চারা রোপন করেন। গত প্রায় দুই বছর ধরে ওই জমিতে প্রায় অর্ধশত ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী বাশ-কাঠ-টিনের অস্থায়ী স্থাপনা নির্মান করে বিভিন্ন ব্যবসা করছিলো।
ওই স্থানে ব্যবসা করা একাধিক ব্যবসায়ী জানান, পূনর্বাসন না করে উচ্ছেদের ফলে তারা চোঁখে মুখে অন্ধকার দেখছেন। পরিবার পরিজন নিয়ে কিভাবে চলবেন এ প্রশ্ন রাখেন তারা।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আ. কুদদূস জানান, তিনি যোগদানের পর একাধিকবার অবৈধ স্থাপনা সড়িয়ে নিতে বলা হয়েছে। যোগদানের আগেও সহকারী কমিশনার (ভূমি) স্থাপনা সড়াতে নোটিশ দিয়েছেন। এক্ষেত্রে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা যথেষ্ট সময় পেয়েছেন। তারপরও পৌর মেয়রের সাথে সমন্বয় করে একেবারে প্রান্তিক ব্যবসায়ীদের পুনর্বাসনের চেষ্টা করা হবে।
#

এ সম্পর্কিত আরো লেখা